Chattisgarh: কিশোরকে চড় মারার ভিডিও ভাইরাল, অভিযুক্ত কালেক্টরকে সরানোর নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর

রবিবার এক ট্যুইট বার্তায় তিনি সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেছেন। গতকাল এক ভাইরাল ভিডিওতে এক কিশোরকে চড় মারতে দেখা গেছিলো ওই জেলা কালেক্টরকে।
Chattisgarh: কিশোরকে চড় মারার ভিডিও ভাইরাল, অভিযুক্ত কালেক্টরকে সরানোর নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর
কিশোরকে চড় মারার ঘটনার ভিডিও ভাইরালভিডিও থেকে স্ক্রীনশট

এক কিশোরকে চড় মারার ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হতেই দোষী জেলা কালেক্টরকে সরিয়ে দিলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ভূপেশ বাঘেল। রবিবার এক ট্যুইট বার্তায় তিনি সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেছেন। গতকাল এক ভাইরাল ভিডিওতে এক কিশোরকে চড় মারতে দেখা গেছিলো ওই জেলা কালেক্টরকে।

এদিনের ট্যুইট বার্তায় ভূপেশ বাঘেল জানান – সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে দেখা গেছে সূরজপুরের কালেক্টর রণবীর শর্মা এক কিশোরকে চড় মারছেন। এই দুর্ব্যবহারের ঘটনা আমার নজরে এসেছে। এই ঘটনা দুঃখের এবং অত্যন্ত নিন্দনীয়। ছত্তিশগড়ে এধরনের কোনো ঘটনা বরদাস্ত করা হবেনা। কালেক্টর রণবীর শর্মাকে ওখান থেকে সরানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

ঘটনার ভাইরাল হওয়া ভিডিও অনুসারে, কোভিড বিধি ভঙ্গ করায় জেলা কালেক্টর রণবীর শর্মা এক কিশোরের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেন। ভিডিওতে দেখা গেছে ওই কিশোরের হাত থেকে মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে তিনি মাটিতে ছুঁড়ে ফেলেন এবং কিশোরকে চড় মারেন। এরপর সঙ্গে থাকা পুলিশদের উদ্দেশ্যে ওই যুবককে মারতে বলেন। পুলিশের লাঠিপেটার দৃশ্যও ওই একই ভিডিওতে আছে।

এই ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হবার পরেই জেলা কালেক্টর রণবীর শর্মা প্রকাশ্যে ক্ষমা চান। যদিও তার আগেই এই ঘটনায় প্রতিবাদ জানিয়ে লিগাল রাইটস প্রোটেকশন ফোরামের পক্ষ থেকে আইএএস রণবীর শর্মার বিরুদ্ধে জুভেনাইল জাস্টিস অ্যাক্ট, ২০১৫ অনুসারে এফ আই আর দায়ের করা হয়।

জেলা কালেক্টর রণবীর শর্মার দাবি অনুসারে তিনি যাকে মেরেছেন সে কিশোর নয়, যুবক। তার বয়স ২৩ বছর। লকডাউন বিধি ভঙ্গ করায় এবং বাহিনীর উদ্দেশ্যে অপমানজনক কথা বলায় তাঁকে উত্তেজনার মুহূর্তে তিনি চড় মারেন। যার জন্য তিনি ক্ষমাপ্রার্থী।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in