উত্তর ত্রিপুরাতে ব্রু শরণার্থীদের গণ পুনর্বাসনের বিরুদ্ধে করা বিক্ষোভের ওপর সরাসরি গুলি চালালো পুলিশ। এই ঘটনায় কমপক্ষে একজনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও কয়েকজন, এদের মধ্যে পাঁচজনের অবস্থা গুরুতর। এই ঘটনায় উত্তাল হয়ে উঠেছে গোটা ত্রিপুরা। রাজ‍্যের বেশ কিছু জায়গা, যেগুলো তুলনামূলক বেশি উত্তপ্ত, সেখানে প্রচুর পরিমাণে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, আন্দোলনকারীরা আগরতলা থেকে কিছু দূরে পানিসাগর শহরে ৮ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে রেখেছিল এবং পুলিশের উদ্দেশ্যে বারবার পাথর ছুঁড়ছিলো। এরপরই পুলিশের তরফ থেকে গুলি চালানো হয়।

পুলিশের একটা সূত্র নিশ্চিত করেছে ব্রু শরণার্থীদের পুনর্বাসনের বিরুদ্ধে জয়েন্ট মুভমেন্ট কমিটির আন্দোলনের ওপর গুলি চালানোর ঘটনায় শ্রীকান্ত দাস (৪৫) নামের এক আন্দোলনকারীর মৃত্যু হয়েছে এবং পাঁচজন গুরুতর আহত হয়েছেন।

স্থানীয় কয়েকটি সূত্রের দাবি আন্দোলনকারীদের পাল্টা আক্রমণে দমকল বিভাগের এক কর্মীরও মৃত্যু হয়েছে। তবে পুলিশ এখনও এই মৃত‍্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেনি।

পানিসাগর এবং তার পার্শ্ববর্তী এলাকা কাঞ্চনপুরে ত্রিপুরা স্টেট রাইফেলসের সৈন্য সহ প্রচুর নিরাপত্তা রক্ষী মোতায়েন করা হয়েছে। এলাকায় এখনও যথেষ্ট উত্তেজনা রয়েছে।

প্রসঙ্গত, মিজোরাম থেকে ত্রিপুরাতে ফিরে আসা প্রায় ৩৫ হাজার ব্রু উপজাতি শরণার্থীদের পুনর্বাসন দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। সরকারের এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করে গত ১৬ নভেম্বর থেকে শাটডাউন চলছে ত্রিপুরাতে যা সাধারণ জনজীবনকে স্তব্ধ করে দিয়েছে।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে সিপিআই(এম) ত্রিপুরার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে - "সিপিআই(এম) প্রথম থেকেই দাবি জানিয়ে আসছিল আন্দোলনকারীদের সাথে কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকার দ্রুত আলোচনায় বসার জন্য। শান্তি, সম্প্রীতি ও সৌহার্দপূর্ণ পরিবেশ বজায় রাখতে।"


জনপ্রিয় খবর

  • এই সপ্তাহের এর

  • এই মাস এর

  • সর্বকালীন