দেশের মধ্যে প্রথম রাজ্য হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে কেন্দ্র সরকার প্রবর্তিত বিতর্কিত কৃষি আইন বাতিল করলো পাঞ্জাব। পাশাপাশি কৃষকদের জন্য তিনটি নতুন বিলও পাশ করিয়েছে সরকার। মঙ্গলবার রাজ‍্য বিধানসভায় প্রথমে কেন্দ্রের আইনের বিরুদ্ধে একটি প্রস্তাব পেশ করেন মুখ‍্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং। এরপরই নতুন বিল পেশ করেন তিনি এবং কয়েক মিনিটের মধ্যেই তা পাশ হয়ে যায়।

তিনটি কাউন্টার-বিলের একটিতে সরকারী আধিকারিকদের একটি বিশেষ ক্ষমতা দিয়েছে সরকার। কোনো ব‍্যক্তি সরকার-নির্ধারিত ন‍্যূনতম সহায়ক মূল্যের চেয়ে কম দামে ধান, গম বিক্রি বা ক্রয় করলে সেই ব‍্যক্তিকে জরিমানা করতে পারবেন আধিকারিকরা। এছাড়াও ওই ব‍্যক্তির কমপক্ষে তিন ‌বছরের কারাদন্ড হওয়ার কথা বলা হয়েছে বিলে।

বিলে আরো বলা হয়েছে, কোনো ব‍্যক্তি যদি ন‍্যূনতম সহায়ক মূল্যের কমে কৃষকদের ফসল বিক্রি করার জন্য চাপ দেয় তাহলে তাদেরও শাস্তি দেওয়া হবে। অন‍্য একটি বিলে খাদ্যশস্যের কালোবাজারি বন্ধের ওপর জোর দেওয়া হয়েছে।

এই বিল পাশের কিছু আগে বিধানসভায় দাঁড়িয়ে মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং বলেন, "আমার সরকার বরখাস্ত হওয়ার ভয় পাইনা আমি। তবে কৃষকদের কোনো ক্ষতি হতে দেব না আমি।" কৃষকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, "আমরা আপনাদের পাশে দাঁড়িয়েছি, এখন আপনাদের কর্তব্য আমাদের পাশে দাঁড়ানো।"

প্রসঙ্গত, গত মাসে সংসদের বিরোধীদের প্রবল বাধা সত্ত্বেও ধ্বনি ভোটের মাধ্যমে কৃষি বিল ‌পাস করে সরকার। কৃষি বিল পেশের পর থেকে তা বাতিলের দাবিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্ষোভ শুরু করে কৃষকরা। বিক্ষোভের মাত্রা সবথেকে বেশি ছিল পাঞ্জাবে। কৃষকদের আশঙ্কা, কেন্দ্রের নতুন আইনের কারণে ফসলের ন‍্যূনতম সহায়ক মূল্য থেকে বঞ্চিত হবে তারা।


জনপ্রিয় খবর

  • এই সপ্তাহের এর

  • এই মাস এর

  • সর্বকালীন