বামপন্থীদের দেখে বা নকল করে, তৃণমূল ২০ টাকার ক্যান্টিন চালু করবে বলছে। বিষয়টিকে সাধুবাদ জানাই। অন্তত ধর্ম, জাত বা বিভাজন থেকে নজরটা খাদ্য, কাজ বা দুর্নীতি দিকে ফিরুক। সেটুকুই শ্রেয়। শনিবার এক ট্যুইটে একথা জানিয়েছেন সিপিআই(এম) বিধায়ক সুজন চক্রবর্তী।

এর পাশাপাশি সরকারকে দুটি পরামর্শও দিয়েছেন বাম পরিষদীয় দলনেতা। তাঁর আবেদন, এই ধরনের ক্যান্টিন প্রতিটি পঞ্চায়েতে চালু করা হোক। সঙ্গে তিনি জানিয়েছেন এই ধরনের কাজে লুঠ বা তোলাবাজি করা চলবে না। নিঃস্বার্থ ভাবে মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে কাজ করতে হবে।

 

প্রসঙ্গত, করোনা আবহের জন্য গোটা দেশের পাশাপাশি রাজ্যেও চরম সমস্যার সম্মুখীন সাধারণ মানুষ। ইতিমধ্যেই দেশ ও রাজ্যে কাজ হারিয়েছেন কয়েক কোটি মানুষ। আগামী দিনে যে সংখ্যা আরও বাড়বে বলে আশঙ্কা। হাতে কাজ না থাকায় পেটে ভাত নেই। অভুক্ত অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন দেশের গরিব মানুষরা। এই পরিস্থিতিতে বাংলায় শ্রমজীবী ক্যান্টিন শুরু করেছে বিভিন্ন বাম সংগঠন।

কুড়ি টাকার বিনিময়ে এক বেলার পেট ভরে খাবার ব্যবস্থা করেছেন তারা। প্রতিদিন ৪৫০ থেকে ৫৫০ মানুষের মুখে খাবার তুলে দিচ্ছেন সিপিআইএম কর্মীরা। এই দেখে রাজ্য সরকারও কুড়ি টাকার ক্যান্টিন চালু করবে বলে শোনা গিয়েছে। এই নিয়ে মুখ খুলেছেন বাম পরিষদ নেতা সুজন চক্রবর্তী।


পিপলস রিপোর্টার এর সব খবর এখন Telegram-এও।
সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন এই লিঙ্কে - t.me/peoplesreporter 
সব খবর পেয়ে যান হাতের মুঠোয়, এক মুহূর্তে
গুজবে নয়, খবরে থাকুন পিপলস রিপোর্টারের সঙ্গে থাকুন


জনপ্রিয় খবর

  • এই সপ্তাহের এর

  • এই মাস এর

  • সর্বকালীন