২৭ মার্চ রাত সাড়ে ১১টার পরিসংখ্যান অনুসারে বিশ্বজুড়ে করোনা ভাইরাস COVID-19 আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫,৭৯,৮৮৮ জন। এখনও পর্যন্ত এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ২৬,৫০৪ জনের। মৃতের সংখ্যায় ইতালি ছাড়িয়ে গেছে চীনকে। সংক্রমণের শীর্ষে এখন আমেরিকা। এখনও পর্যন্ত ৪,২০,৭০৮ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস সক্রিয় বলে জানা গেছে। ১,৩০,৬৭৬ জন ভাইরাস আক্রান্ত মানুষ সংক্রমণ মুক্ত হয়েছেন বলেও জানানো হয়েছে।

 

এখনও পর্যন্ত বিশ্বের ১৯৯ টি দেশ থেকে এই ভাইরাস সংক্রমণের খবর পাওয়া গেছে। যার মধ্যে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ সবথেকে বেশি ঘটেছে আমেরিকায়। সংক্রমিতের সংখ্যা ৯৪,৪২৫। এর পরেই স্থান ইটালীর। ৮৬,৪৯৮ জন। চীনে ৮১,৩৪০ জন। স্পেনে ৬৪,০৫৯ জন। জার্মানিতে ৪৯,৩৪৪ জন। ইরানে এখনও পর্যন্ত ৩২,৩৩২ জন, ফ্রান্সে ২৯,১৫৫ জন, ইংল্যান্ডে ১৪,৫৪৩ জন, সুইজারল্যান্ডে ১২,৯২৮ জন, দক্ষিণ কোরিয়ায় ৯,৩৩২ জন, নেদারল্যান্ডে ৮,৬০৩ জন, অস্ট্রিয়াতে ৭,৬১০ জন, বেলজিয়ামে ৭,২৮৪ জন, তুরস্কে ৫,৬৯৮ জন, কানাডাতে ৪,৬১০ জন, পর্তুগালে ৪,২৬৮ জন, নরওয়েতে ৩,৬৯৬ জন, সুইডেনে ৩,০৪৬ জন, অস্ট্রেলিয়াতে ৩,১৮০ জন, ইজরায়েলে ৩,০৩৫ জন, ব্রাজিলে ৩,২০৭ জন, মালয়েশিয়াতে ২,১৬১ জন, ডেনমার্কে ২,০১০ জন জন, আয়ারল্যান্ডে ১,৮১৯ জন, লুক্সেমবুরগে ১,৬০৫ জন এবং জাপানে ১,৩৮৭ জন।

করোনায় সংক্রমিত হয়ে এখনও পর্যন্ত সর্বাধিক মৃত্যু হয়েছে ইতালিতে। সেখানে মোট মৃত্যুর সংখ্যা ৯,১৩৪। এখনও পর্যন্ত চীনে মারা গেছেন ৩,২৯২ জন। স্পেনে মৃত ৪,৯৩৪ জন। আমেরিকায় মৃত ১,৪২৯ জন। জার্মানিতে মৃত ৩০৪ জন। ইরানে মৃত ২,৩৭৮ জন। ফ্রান্সে মৃত ১,৬৯৬ জন। দক্ষিণ কোরিয়ায় ১৩৯ জন। সুইজারল্যান্ডে ২৩১ জন। ইংল্যান্ডে ৭৫৯ জন। নেদারল্যান্ডে ৫৪৬ জন, বেলজিয়ামে ২৮৯ জন।

এখনও পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুসারে শেষ কয়েক ঘণ্টায় চীনে নতুন করে ৫৫ জন সংক্রমিত হয়েছেন। ইতালিতে ৫,৯০৯ জন, আমেরিকায় ৮,৯৯০ জন, স্পেনে ৬,২৭৩ জন, জার্মানিতে ৫,৪০৬ জন, দক্ষিণ কোরিয়ায় ৯১ জন, সুইজারল্যান্ডে ১,১১৭ জন, অস্ট্রিয়াতে ৭০১ জন, অস্ট্রেলিয়াতে ১৩০ জন, ব্রাজিলে ৪২ জন, পাকিস্তানে ১৩০ জন, ইস্রায়েলে ৩৪২ জন সংক্রমিত হয়েছেন। সারা বিশ্বে নতুন ভাবে সংক্রমিত হয়েছেন ৪৫,৭৩৭ জন।

চীনে এখনও পর্যন্ত ১,০৩৪ জন, ইটালীতে ৩,৭৩২ জন, স্পেনে ৩,৪,১৬৫ জন, দক্ষিণ কোরিয়ায় ৫৯ জন, আমেরিকায় ২,৪৬৩ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

ভারতের ক্ষেত্রে ২৭ মার্চ রাত সাড়ে ১১টার পরিসংখ্যান অনুসারে এখনও পর্যন্ত দেশে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৮৮৫ জন। এখনও পর্যন্ত ভারতে মোট ১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। ৭৫ জন সংক্রমণ মুক্ত হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন।

পরিসংখ্যান অনুসারে সংক্রমিতদের মধ্যে সর্বাধিক ১৭৬ জন সংক্রমিত হয়েছেন কেরলে। মহারাষ্ট্রে ১৫৬ জন, কর্ণাটকে ৬৪ জন, তেলেঙ্গানায় ৫৯ জন, রাজস্থানে ৫০ জন, উত্তরপ্রদেশে ৪৯ জন, গুজরাটে ৪৭ জন, দিল্লিতে ৪০ জন, পাঞ্জাবে ৩৮ জন, তামিলনাড়ুতে ৩৮ জন, হরিয়ানাতে ৩৩ জন, মধ্যপ্রদেশে ৩০ জন, জম্মু ও কাশ্মীরে ১৮ জন, পশ্চিমবঙ্গে ১৫ জন, লাদাখে ১৩ জন, অন্ধ্রপ্রদেশে ১৩ জন, বিহারে ৯ জন, চন্ডীগড়ে ৮ জন, আন্দামানে ৬ জন, ছত্তিশগড়ে ৬ জন, উত্তরাখণ্ডে ৫ জন, গোয়াতে ৩ জন, হিমাচল প্রদেশে ৩ জন, ওড়িশাতে ৩ জন, মণিপুর, মিজোরাম, পুদুচেরিতে ১ জন। এদিনই নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ১৫০ জন।

মৃতদের মধ্যে মহারাষ্ট্রে ৪ জন, কর্ণাটকে ৩ জন, গুজরাটে ৩ জন, দিল্লিতে, পাঞ্জাবে, জম্মুতে, পশ্চিমবঙ্গে, বিহারে, হিমাচল প্রদেশে ও তামিলনাড়ুতে ১ জন করে, মধ্যপ্রদেশের ২ জন বাসিন্দা আছেন।

 


জনপ্রিয় খবর

  • এই সপ্তাহের এর

  • এই মাস এর

  • সর্বকালীন