বৃহস্পতিবার বিকাল ৫টায় কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, দেশে বর্তমানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২১,৭০০। কেন্দ্রীয় মন্ত্রকের তথ্য অনুযায়ী, এখনও পর্যন্ত সংক্রমণ মুক্ত হয়েছেন ৪,৩২৫ জন। করোনা সংক্রমিত হয়ে ভারতে মারা গেছেন মোট ৬৮৬ জন। শেষ ২৪ ঘণ্টায় ১,২২৯টি নতুন সংক্রমণের খবর পাওয়া গেছে। শেষ ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৩৪ জন এবং ৩৬৫ জনকে সুস্থ ঘোষণা করা হয়েছে।

কেন্দ্রীয় সরকারের পরিসংখ্যান অনুসারে সর্বাধিক সংক্রমণের ঘটনা ঘটেছে মহারাষ্ট্রে, ৫,৬৫২টি। এরপরই রয়েছে গুজরাট, সেখানে ২,৪০৭ জনের শরীরে এই ভাইরাসের উপস্থিতি ধরা পড়েছে। দিল্লিতে ২,২৪৮ জন, রাজস্থানে ১,৮৯০ জন ও তামিলনাড়ুতে ১,৬২৯ জনের সংক্রমণ ঘটেছে। মধ‍্যপ্রদেশে ১,৬৯৫ জন, উত্তরপ্রদেশে ১,৫০৯ জন, তেলেঙ্গানায় ৯৬০ জন, অন্ধ্রপ্রদেশে ৮৯৫ জন, পশ্চিমবঙ্গে ৪৫৬ জন, কর্ণাটকে ৪৪৩ জন,  কেরালায় ৪৩৮ জন,  জম্মু ও কাশ্মীরে ৪০৭ জন, হরিয়ানাতে ২৬২ জন, পাঞ্জাবে ২৭৭ জন, বিহারে ১৪৮ জন, ওড়িশায় ৮৩ জন, উত্তরাখণ্ডে ৪৬ জন, ঝাড়খন্ডে ৪৯ জন, হিমাচল প্রদেশে ৪০ জন, ছত্তিশগড়ে ৩৬ জন, আসামে ৩৫ জন, চন্ডীগড়ে ২৭ জন, লাদাখে ১৮ জন, আন্দামান ও নিকোবর দ্বীপপুঞ্জে ১৮ জন, মেঘালয়ে ১২ জন, গোয়াতে ৭ জন (৭জনই সুস্থ), পুদুচেরিতে ৭ জন, মনিপুরে ২ জন, ত্রিপুরায় ২জন, মিজোরামে ১ জন, অরুণাচল প্রদেশে ১ জনের শরীরে সংক্রমণ পাওয়া গেছে।

মৃতের সংখ্যার বিচারে রাজ‍্যগুলির মধ্যে প্রথম রয়েছে মহারাষ্ট্র, এখনও পর্যন্ত মোট ২৬৯ জন আক্রান্তের মৃত্যু হয়েছে রাজ‍্যে, শেষ ২৪ ঘন্টায় মারা গেছেন ১৮ জন। গুজরাটে ১০৩ জন, মধ্যপ্রদেশে ৮১ জন, দিল্লিতে ৪৮ জন, রাজস্থানে ২৭ জন, অন্ধ্রপ্রদেশে ২৭ জন, তেলেঙ্গানায় ২৪ জন, উত্তরপ্রদেশে ২১ জন, তামিলনাড়ুতে ১৮ জন, কর্ণাটকে ১৭ জন, পাঞ্জাবে ১৬ জন,   পশ্চিমবঙ্গে ১৫ জন, জম্মু ও কাশ্মীরে ৫ জন, হরিয়ানায় ৩ জন, কেরালায় ৩ জন, ঝাড়খন্ডে ৩ জন, বিহারে ২ জন, হিমাচল প্রদেশে ১ জন, ওড়িশায় ১ জন, মেঘালয়ে ১ জন, আসামে ১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের ওয়েবসাইট https://www.mohfw.gov.in/ -এর ২৩ এপ্রিল বিকাল ৫টার তথ্য অনুসারে।

 

জনপ্রিয় খবর

  • এই সপ্তাহের এর

  • এই মাস এর

  • সর্বকালীন